কোতোয়ালী থানার এনায়েত বাজার এলাকার মৃত আলী ফজলের ছেলে আলী হোসেন (৭০)। পুলিশের তালিকাভূক্ত মাদক ব্যবসায়ী। তার বিরুদ্ধে কোতোয়ালী থানায় আছে অর্ধডজন মাদক মামলা। ইতোমধ্যে র‌্যাবের হাতে মাদকসহ ধরা পড়ে আদালত কর্তৃক সাজাও পেয়েছেন।

কিন্তু সাজা ঘোষণার আগে থেকেই তিনি উধাও। মামলার বিচারকাজ চলাকালে জামিনে গিয়ে তিনি আর আদালতে যাননি। ফলে সাজা পরোয়ানা নিয়ে তাকে এতদিন খুঁজছিল পুলিশ। অবশেষে কোতোয়ালী থানার দুই সহকারী উপ-পরিদর্শক ভিক্ষুকের ছদ্মবেশে শনাক্ত করে গ্রেপ্তার করেন আলী হোসেনকে।

শুক্রবার (২৭ আগস্ট) দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করেন কোতোয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নেজাম উদ্দিন। তিনি বলেন, বৃহস্পতিবার বিকেলে এএসআই সাইফুল আলম ও রণেশ বড়ুয়া এনায়েতবাজার বাটালী রোডের বরফ গলির মুখ থেকে আলী হোসেনকে গ্রেপ্তার করে।

জানা গেছে, আলী হোসেন ও তার মেয়ে বেগম (৩৭) ২০১১ সালের ২৮ ডিসেম্বর ১০০ বোতল ফেন্সিডিল নিয়ে র‌্যাবের হাতে গ্রেপ্তার হয়। সেই মামলার তাকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও ১০হাজার টাকা অর্থদন্ড এবং অনাদায়ে আরো ৬ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ডাদেশ দেয় আদালত। কিন্তু এর আগে জামিনে গিয়ে পলাতক থাকায় তিনি সাজাভোগ করেননি।

আলী হোসেনকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান ওসি নেজাম উদ্দিন

আরও খবর