টাকার লোভ দেখিয়ে ১০ বছরের এক শিশুকে নিজের বেডরুমে নিয়ে গিয়ে বিকৃত যৌনাচারে লিপ্ত হওয়ার দায়ে গ্রেপ্তার হয়েছেন ৪৮ বছরের এক পুরুষ।

সোমবার (৯ আগস্ট) বায়েজিদ বোস্তামীর বার্মা কলোনির শাহাদাত মঞ্জিলের ভাড়া ঘর থেকে গ্রেপ্তার হওয়া মুজিবর রহমান (৪৮) মোগলটুলীর মৃত নুরু রহমানের পুত্র। বায়েজিদ থানা পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে।

তার বিরুদ্ধে অভিযোগ তিনি প্রতিবেশীর শিশু কন্যাকে টাকার লোভ দেখিয়ে নিজের শয়নকক্ষে নিয়ে গিয়ে বিকৃত যৌনাচারে লিপ্ত হতেন।

সোমবার দুপুর ১ টার দিকে মুজিবর একইভাবে ওই শিশুটিকে নিজের শয়নকক্ষে নিয়ে গেলে বিষয়টি তার রুমমেট নাজমুল হকের (২৫) নজরে আসে। তখন তিনি একই কলোনির আরেকজন ভাড়াটিয়া শাহ জালালকে (৩৫) বিষয়টি জানালে দুজনে মিলে মুজিবরের কক্ষের দরজা খুলে ভিকটিমকে তার পরনের পায়জামা খোলা অবস্থায় দেখতে পায়। এ সময় ভিকটিমকে তাদের জানায় প্রায়ই টাকার বিনিময়ে মুজিবর তাকে এভাবে রুমে আনেন।

এই ঘটনায় স্থানীয়দের সহযোগিতায় মুজিবরকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ভিকটিম শিশুটির মা বাদী হয়ে তার বিরুদ্ধে বায়েজিদ থানায় একটি মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে বলে জানিয়েছেন বায়েজিদ বোস্তামী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. কামরুজ্জামান। তিনি বলেন, ‘১০ বছর বয়সী এক শিশুকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে মুজিবর নামের একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ভিকটিমের মা বাদী হয়ে তার বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করার প্রস্তুতি নিচ্ছেন। আমরা বিষয়টি নিয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা নিচ্ছি।’

আরও খবর